সোমের চন্দ্রযান-৩ যাত্রা কেমন সফল হতে পারে? জেনে নিন করণীয় সম্পর্কে

Estimated read time 1 min read

সব ঠিক থাকলে ইসরোর চন্দ্রযান-৩ মঙ্গলেই শুরু করবে চাঁদের পথে পাড়ি জমানোর প্রক্রিয়া। তার আগে সোমবারের কাজ আরও গুরুত্বপূর্ণ।

পৃথিবীর কক্ষপথ ছেড়ে চাঁদের দিকে লাফ দেওয়ার প্রস্তুতি প্রায় শেষ পর্যায়ে। সব ঠিক থাকলে ইসরোর চন্দ্রযান-৩ মঙ্গলেই শুরু করবে চাঁদের পথে পাড়ি জমানোর প্রক্রিয়া। তার আগে সোমবারের কাজ আরও গুরুত্বপূর্ণ। কারণ, চন্দ্রযানের গতি ক্রমশ বৃদ্ধি করে তাকে পৃথিবীর মাধ্যাকর্ষণের বাইরে নিয়ে ফেলার প্রস্তুতি শুরু হবে সোমবার থেকেই। তার আগে রবিবার দেশের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সংক্রান্ত প্রতিমন্ত্রী জিতেন্দ্র সিংহ জানালেন, ঠিক কবে, কী ভাবে চাঁদে অবতরণ করতে চলেছে চন্দ্রযান-৩।

জিতেন্দ্র বলেছেন, “আগামী ২৩ অগস্ট চাঁদের মাটি ছুঁতে পারে চন্দ্রযান-৩। তবে তার আগে পৃথিবীর কক্ষপথ ছেড়ে চাঁদের কক্ষপথে প্রবেশ করবে চন্দ্রযান-৩। ধীরে ধীরে চান্দ্রপৃষ্ঠের দিকে এগোবে। শেষে চাঁদের দক্ষিণ মেরুর পরিবেশ পরিস্থিতি বিচার করে অবতরণের উপযুক্ত স্থানে আলতো ভাবে চাঁদের মাটি ছোঁবে।”

গত ১৪ জুলাই যাত্রা শুরু করেছে চন্দ্রযান-৩। তবে এখনও সেটি পৃথিবীর কক্ষেই রয়েছে। সাধারণত গতিবৃদ্ধির মাধ্যমে এবং কক্ষপথের পরিধি ক্রমে বাড়িয়ে কাঙ্ক্ষিত গতিবেগে তাকে চাঁদের কক্ষপথে এনে ফেলাটাই একটা বড় চ্যালেঞ্জ। ইসরো জানিয়েছে, আগামী ২৫ জুলাই দুপুর ২টো থেকে ৩টের মধ্যে পঞ্চমবারের জন্য কক্ষপথের পরিধি বৃদ্ধির প্রক্রিয়া শুরু করার চেষ্টা করবে তারা।

এর আগে ইসরো চেয়ারম্যান এস সোমনাথ জানিয়েছিলেন পৃথিবীর কক্ষপথ ছেড়ে বেরনোর প্রক্রিয়াটি ৩১জুলাই পর্যন্ত চলতে পারে। সে ক্ষেত্রে চন্দ্রযান-৩ চাঁদের কক্ষপথে প্রবেশ করবে ১ অগস্ট। এর পর চাঁদের কক্ষপথে ঘুরতে ঘুরতে যখন চন্দ্রপৃষ্ঠ থেকে চন্দ্রযান-৩ এর দূরত্ব হবে ১০০ কিলোমিটার, তখনই চাঁদে নামার চেষ্টা শুরু হবে। আপাতত ২৩ অগস্টকেই চাঁদের মাটি ছোঁয়ার সম্ভাব্য দিন হিসাবে ভেবে রেখেছে ইসরো। তবে চন্দ্রযান ২ এর ব্যর্থতার কথা মাথায় রেখে সতর্কও থাকছে তারা।

More Information – Click Here

 

You May Also Like

More From Author

+ There are no comments

Add yours